শিরোনাম
আইডিইবি ইন্ডাস্ট্রিয়াল এন্ড এন্টারপ্রেনার্স ডেভেলপমেন্ট এসোসিয়েশন এর কমিটি গঠন ডিজিটাল বাংলাদেশের পরবর্তী ধাপ ক্যাশলেস সোসাইটি : জয় এসএমই ফাউন্ডেশনের ১০০’ কোটি টাকা ঋণের ৩৩ শতাংশ পেয়েছেন নারী উদ্যোক্তারা নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের আঁতাতকরী বিএনপি নেতা নাসিরকে গনধোলাই দিলো কর্মীরা প্রধানমন্ত্রীর প্রণোদনা নিয়ে স্বজনপ্রীতি সহ্য করা হবে না : ওবায়দুল কাদের করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় ৩২০০ কোটি টাকার নতুন প্রণোদনা প্যাকেজের ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের হাসেম ফুড পরিদর্শনে এসে বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, পুলিশের লাঠিচার্জ চলমান লকডাউন শিথিল, ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত কঠোর বিধি-নিষেধের প্রজ্ঞাপন জারি রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে জাতিসংঘে প্রস্তাব গৃহীত করোনা রোগীর চাপে চট্টগ্রাম মেডিকেলে সাধারণ রোগী ভর্তি বন্ধ করে দিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ
শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৫১ পূর্বাহ্ন

নিষেধাজ্ঞা কমায় ক্রিকেটে ফিরছেন উমর

ক্রীড়া ,পিআরবি নিউজ
আপডেট শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
উমর আকমল

উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান উমর আকমলের নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ আরো ছয় মাস কমিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড(পিসিবি)। দেড় বছরের নিষেধাজ্ঞা কমে এখন ১২ মাসে দাঁড়িয়েছে। ফলে গেল বছরের ফেব্রুয়ারি থেকে নিষেধাজ্ঞা শুরু হওয়ায় এক বছর পেরিয়ে গেছে। তাই আবারো ক্রিকেটে ফিরতে আর কোন বাঁধা নেই উমরের। আজ এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিক করেছে পিসিবি। তবে নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তি পেলেও ৪ দশমিক ২৫ মিলিয়ন (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ২৩ লাখ টাকা) জরিমানা গুনতে হবে উমরকে।

পাকিস্তান সুপার লিগে (পিএসএল) অনৈতিক প্রস্তাব পাবার পর সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে না জানানোয় প্রথমে উমরকে তিন বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছিল । পরে গত মে মাসে নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে আপিল করলে শাস্তিার মেয়াদ দেড় বছর কমে দেড় বছরের শাস্তিও মনপুতো হয়নি উমরের। তাই আবারো আপিল করেন তিনি। এবার ছয় মাস শাস্তি কমে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে বোর্ড ও উমর আকমলের দায়ের করা আপিলের ভিত্তিতে পিসিবির দুর্নীতি দমন আইনের ২.৪.৪ অনুচ্ছেদ লঙ্ঘনেরদায়ে উমর আকমলকে ১২ মাসের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে। সেই সঙ্গে তাকে ৪ দশমিক ২৫ মিলিয়ন পাকিস্তানি রুপি জরিমানা করা হয়েছে। ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) দুর্নীতি দমনের ২.৪.৪ ও ২.৪.৫ নীতি অনুযায়ী কোনো খেলোয়াড় যদি টুর্নামেন্ট চলাকালীন ম্যাচ পাতানোর অবৈধ প্রস্তাব পেয়ে তা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে না জানায় তবে তাকে সর্বোচ্চ ৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার বিধান রয়েছে। একই রকম অভিযোগে পেসার মোহাম্মদ ইরফান ৬ মাস, স্পিনিং অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নওয়াজ ২ মাসের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছিলেন।


এই বিভাগের আরো খবর
greengrocers

Categories

Archives