শিরোনাম
আইডিইবি ইন্ডাস্ট্রিয়াল এন্ড এন্টারপ্রেনার্স ডেভেলপমেন্ট এসোসিয়েশন এর কমিটি গঠন ডিজিটাল বাংলাদেশের পরবর্তী ধাপ ক্যাশলেস সোসাইটি : জয় এসএমই ফাউন্ডেশনের ১০০’ কোটি টাকা ঋণের ৩৩ শতাংশ পেয়েছেন নারী উদ্যোক্তারা নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের আঁতাতকরী বিএনপি নেতা নাসিরকে গনধোলাই দিলো কর্মীরা প্রধানমন্ত্রীর প্রণোদনা নিয়ে স্বজনপ্রীতি সহ্য করা হবে না : ওবায়দুল কাদের করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় ৩২০০ কোটি টাকার নতুন প্রণোদনা প্যাকেজের ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের হাসেম ফুড পরিদর্শনে এসে বিএনপির দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, পুলিশের লাঠিচার্জ চলমান লকডাউন শিথিল, ২৩ জুলাই থেকে ৫ আগস্ট পর্যন্ত কঠোর বিধি-নিষেধের প্রজ্ঞাপন জারি রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে জাতিসংঘে প্রস্তাব গৃহীত করোনা রোগীর চাপে চট্টগ্রাম মেডিকেলে সাধারণ রোগী ভর্তি বন্ধ করে দিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ
শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৫৮ পূর্বাহ্ন

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে নারায়ণগঞ্জে গণসংহতি আন্দোলনের মানববন্ধন 

মাহমুদ হাসান কচি, নারায়ণগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি
আপডেট শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কারাবন্দী লেখক মুশতাক আহমেদের মৃত্যুর ঘটনায় সুষ্ঠু তদন্তের দাবি  সহ জনগণের স্বার্থে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে গণসংহতি আন্দোলন নারায়ণগঞ্জের রাজপথে নেমেছে। দলটির নেতারা তাদের কর্মীদের নিয়ে শুক্রবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে নগরীর চাষাঢ়ায় সহ নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন করে  এসব দাবি জানান।
উল্লেখ্য, গত ২৫ ফেব্রুয়ারি রাতে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে কারাবন্দী লেখক মুশতাক আহমেদ (৫৩) মারা যান। তিনি গাজীপুরের কাশিমপুর হাই সিকিউরিটি কারাগারে ছিলেন। তাঁর মৃত্যুর প্রতিবাদে গণসংহতি আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার ব্যানারে এই মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী সমন্বয়কারী আবুল হাসান রুবেল, রাজনৈতিক পরিষদের সদস্য ফিরোজ আহমেদ। জেলা সমন্বয়কারী তরিকুল সুজনের সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন নির্বাহী সমন্বয়কারী অঞ্জন দাস, জেলা নারী সংহতির সাধারণ সম্পাদক পপি রাণী সরকার, মশিউর রহমান রিচার্ড, কেন্দ্রীয় ছাত্র ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক জাহিদ সুজন, জেলা সভাপতি শুভ দেব, সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস জামান, মহানগরের আহ্বায়ক ফারহানা মানিক মুনা প্রমুখ। এর আগে শহরে বিক্ষোভ মিছিল করেন তারা।
আবুল হাসান রুবেল বলেন, মানুষের অধিকার রক্ষার জন্য এই দেশ স্বাধীন করা হয়েছিল। শেখ হাসিনার এই স্বৈরাচারী সরকার নিজেদের ক্ষমতায় টিকিয়ে রাখতে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের নামে ‘কালা কানুন’ মানুষের উপর চাপিয়ে দিচ্ছে। একটি কার্টুন শেয়ার করার কারণে গ্রেফতার হয়ে কারাগারের ভেতর মৃত্যুবরণ করতে হয়েছে লেখক মুশতাক আহমেদকে। মানুষের কথা বলার স্বাধীনতা ও জীবনের নিরাপত্তার উপর কর্তৃত্ব চালানো হচ্ছে। রাতের আধারে ভোট ডাকাতি করে জনগণের উপর ফ্যাসিবাদী শাসন চালাচ্ছে এই সরকার। লেখক মুশতাক আহমেদের মৃত্যুকে ‘হত্যাকান্ড’ উল্লেখ করে বিচার ও ডিজিটাল
নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবি জানান আবুল হাসান।


এই বিভাগের আরো খবর
greengrocers

Categories

Archives